বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি বিজ্ঞপ্তি

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি বিজ্ঞপ্তি ২০২০-২০২১

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি বিজ্ঞপ্তি ২০২০-২০২১ । জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) ভর্তি সার্কুলার 2020-21 বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি বিষয়ক ওয়েবসাইট juniv-admission.org এ প্রকাশ করা হবে। এই পোস্টে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) ভর্তি যোগ্যতা ও মানবন্টন, আবেদনের নিয়মাবলী সম্পর্কে বিস্তারিত আলোচনা করা হল । ইংরেজীতে দেখুন 

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি আবেদনের সময়সীমা বর্ধিত করা হয়েছে ।

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি বিজ্ঞপ্তি ২০২০-২০২১

জাহাঙ্গীরগর বিশ্ববিদ্যালয় (জাবি) বাংলাদেশের প্রথম সারির একটি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়। বিশ্ববিদ্যালয়টিতে ৩৪ টি বিভাগ ও ৩ টি ইনস্টিটিউট রয়েছে এবং এর মোট আসনসংখ্যা ১৮৮৯ টি। তথ্য অনুসারে, ২০১৯-২০ শিক্ষাবর্ষের ‍ভর্তি পরীক্ষায়  ১ হাজার ৮৮৯ টি আসনের বিপরীতে মোট ৩ লাখ ৫৯ হাজার ৯৬২ জন ভর্তি ইচ্ছুক শিক্ষার্থী আবেদন প্রক্রিয়া সম্পন্ন করেছেন। অর্থ্যাৎ, প্রতিটি আসনের বিপরীতে ১৯১ জন ভর্তি ইচ্ছুক পরীক্ষায় অংশ্রগ্রহন করে।

আজকে আমরা  জাহাঙ্গীরগর বিশ্ববিদ্যালয় ভর্তি আবেদন, যোগ্যতা, প্রশ্নের মানবন্টন, আসন সংখ্যাসহ অন্যান্য গুরুত্বপূর্ণ তথ্য নিয়ে আলোচনা করব।

গুরুত্বপূর্ণ তারিখ এবং সময়সূচী

আবেদনের শুরু: ২০ জুন ২০২১ 

আবেদনের শেষ তারিখ: ১৪ আগষ্ট ২০২১ (বর্ধিত)

ভর্তি পরীক্ষা: তারিখ এখনও ঠিক হয়নি।

এডমিট কার্ড: জানিয়ে দেওয়া হবে।

ভর্তি: জানিয়ে দেওয়া হবে।

ভর্তির ওয়েবসাইট লিংক: juniv-admission.org

সর্বশেষ নোটিশ

আবেদন ফি

এ, বি, সি, ডি, ই ইউনিট ৬০০ টাকা
সি ১, এফ, জি, এইচ, আই ইউনিট ৪০০ টাকা

আবেদনের ন্যূনতম যোগ্যতা

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ১০টি ইউনিটের মধ্যে যে কোন ইউনিটে আবেদন করতে হলে যেসব যোগ্যতা অবশ্যই থাকতে হবে তা নিম্নে উল্লেখ করা হলোঃ

১) ২০১৭ সালে বা তার পরবর্তী বছরসমূহের মাধ্যমিক/সমমানের পরীক্ষা এবং ২০১৯ বা ২০২০ সালের উচ্চমাধমিক/মাধ্যমিক পরীক্ষায় উত্তীর্ণ শিক্ষার্থীরা আবেদন করতে পারবে।

২) মাধ্যমিক/সমমান ও উচ্চমাধ্যমিক/সমমান পরীক্ষার ঐচ্ছিক বিষয়সহ (৪র্থ বিষয়) মোট জিপিএ গণনা করা হবে।

৩) প্রয়োজনীয় যোগ্যতা সম্পন্ন শিক্ষার্থী যে কোন ইউনিটে আবেদন করতে পারবে।

ইউনিট ভিত্তিক যোগ্যতা

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে মোট ১০টি ইউনিট রয়েছে। যারা জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ে ভর্তি পরীক্ষা দিতে ইচ্ছুক তাদের অবশ্যই আবেদনের পূর্বে ন্যূনতম আবেদন যোগ্যতা জেনে নিতে হবে ।

A ইউনিট ( গাণিতিক ও পদার্থবিজ্ঞান অনুষদ )- মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৪.০০ থাকতে হবে। বিস্তারিত 

B ইউনিট ( সমাজবিজ্ঞান অনুষদ ) – মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় বিজ্ঞান/মানবিক/ব্যবসায় শিক্ষা/সমমান শাখায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ থাকতে হবে। বিস্তারিত

C ইউনিট (কলা ও মানবিক অনুষদ) – মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় বিজ্ঞান/মানবিক/ব্যবসায় শিক্ষা/সমমান শাখায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ থাকতে হবে।

C1 ইউনিট (নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগ ও চারুকলা বিভাগ) – মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগের জন্য ন্যূনতম জিপি ৩.২৫ এবং চারুকলা বিভাগের জন্য ন্যূনতম জিপি ৩.৫০ থাকতে হবে ।

D ইউনিট (জীববিজ্ঞান অনুষদ) –  মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৪.০০ থাকতে হবে। বিস্তারিত

E ইউনিট (বিজনেস স্টাডিজ অনুষদ)- মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে মানবিক/ব্যবসায় শিক্ষা/সমমান শাখায় ন্যূনতম জিপিএ ৩.৭৫ এবং বিজ্ঞান শাখায় ৪.০০ থাকতে হবে। বিস্তারিত 

F ইউনিট (আইন অনুষদ)- মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৪.০০ থাকতে হবে। বিস্তারিত 

G ইউনিট (ইনস্টিটিউট অব বিজনেস এডমিনেসট্রশন -আইবিএ জেইউ) – মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৪.০০ থাকতে হবে। বিস্তারিত 

H ইউনিট (ইনস্টিটিউট অফ ইনফরমেশন টেকনোলজি -আইআইটি ) – মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৪.০০ থাকতে হবে। বিস্তারিত 

I ইউনিট (বঙ্গবন্ধু তুলনামূলক সাহিত্য ও সংস্কৃতি ইনস্টিটিউট) – মাধ্যমিক ও উচ্চমাধ্যমিক উভয় পরীক্ষায় পৃথকভাবে ন্যূনতম জিপিএ ৩.৫০ থাকতে হবে। বিস্তারিত 

বি:দ্র : ভর্তি বিজ্ঞপ্তিতে ছক আকারে যেসকল যোগ্যতা দেওয়া হয়েছে সেগুলো ভর্তি পরীক্ষায় উত্তীর্ণ হওয়ার পর স্ব স্ব বিভাগে ভর্তির ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হবে ।

ইউনিট অনুযায়ী আসন সংখ্যা

জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রতিটি ইউনিটে ছাত্র ছাত্রীদের জন্য আলাদা আলাদা আসন বরাদ্দ থাকে। নিচে জানহাঙ্গিরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের ইউনিট অনুযায়ী সংখ্যার চার্ট দেওয়া হল ।

 ইউনিটের নাম ছাত্রদের জন্য ছাত্রীদের জন্য মোট আসন
 A ইউনিট ২৩৫ টি ১৭৫ টি ৪১০ টি
B ইউনিট ১৬৩ টি ১৬৩ টি ৩২৬ টি
C ইউনিট * * *
C1 ইউনিট * * *
D  ইউনিট ১৬০ টি ১৬০ টি ৩২০ টি
E  ইউনিট ১০০ টি ১০০ টি ২০০ টি
F ইউনিট ৩০ টি ৩০ টি ৬০ টি
G ইউনিট  ২৫ টি  ২৫ টি ৫০ টি
H ইউনিট ২৮ টি ২৮ টি ৫৬ টি
I  ইউনিট ১৫ টি ১৫ টি ৩০ টি

* C ও C1 ইউনিটের আসন সংখ্যার কোন সুনির্দিষ্ট তথ্য পাওয়া যায় নি । উল্লেখ্য যে, C ইউনিটে বিভিন্ন বিভাগের জন্য ছাত্র ও ছাত্রীদের আলাদা মেরিট লিষ্ট প্রকাশ করা হয় ।

 জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয় প্রশ্নব্যাংক ডাউনলোড করুন

ভর্তি পরীক্ষার মানবন্টন

সকল ইউনিটে ৮০ নম্বরের MCQ পদ্ধতিতে পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। পরীক্ষার সময় ৫৫ মিনিট। তবে OMR পূরণের জনা আলাদাভাবে ৫ মিনিট সময় দেয়া হবে। প্রতিটি ভুল উত্তরের জন্য ০.২০ নম্বর কাটা যাবে। সকল সকল ইউনিটে পাশ নম্বর ২৭ ( এমসিকিউ পরীক্ষার ৩৩% ) ।

A ইউনিট ( গাণিতিক ও পদার্থবিজ্ঞান অনুষদ )

B ইউনিট ( সমাজবিজ্ঞান অনুষদ )

  • গণিত -২২
  • পদার্থবিজ্ঞান – ২২
  •  রসায়ন – ২২
  • বাংলা – ৩
  • ইংরেজি – ৩
  • বুদ্ধিমত্তা (বিজ্ঞান বিষয়ক) – ৮
  • বাংলা – ১০
  •  ইংরেজি – ১৫
  •  গণিত – ১৫
  •  সাধারণ জ্ঞান – ২৫
  •  বুদ্ধিমত্তা – ১৫ নম্বর।

C  ইউনিট  (কলা ও মানবিক অনুষদ)

C1 ইউনিট (নাটক ও নাট্যতত্ত্ব বিভাগ ও চারুকলা )

  • বাংলা – ১৫
  • ইংরেজি – ১৫
  • অনুষদ সংশ্লিষ্ট অন্যান্য বিষয় -৫০ নম্বর
  • বাংলা – ১০
  • ইংরেজি – ১০
  • বিষয়ভিত্তিক – ৬০ নম্বর

D  ইউনিট (জীববিজ্ঞান অনুষদ)

E  ইউনিট (বিজনেস স্টাডিজ অনুষদ)

  • বাংলা ও ইংরেজি – ১৮
  • রসায়ন – ২৪
  • উদ্ভিদবিজ্ঞান – ২২
  • প্রাণিবিদ্যা- ২২
  • বুদ্ধিমত্তা – ৪

ব্যবসায় শিক্ষা শাখা

বিজ্ঞান ও মানবিক শাখা

  • বাংলা – ১৫
  •  ইংরেজি -৩০
  •  গণিত -১৫
  •  হিসাব বিজ্ঞান এবং বাবসায় সংগঠন ও ব্যবস্থাপনা – ২০
  • বাংলা – ১৫
  • ইংরেজি – ৩০
  • গণিত – ১৫
  • সাধারণ জ্ঞান- ২০

F ইউনিট (আইন অনুষদ)

G ইউনিট (আইবিএ জেইউ)

  • বাংলা – ২৫
  • ইংরেজি – ২৫
  • সাম্প্রতিক বিষয় ও বুদ্ধিমত্তা – ৩০
  • বাংলা – ৫
  • ইংরেজি  – ৩০
  • Mathematical Aptitude and IQ -৩০
  • সাম্প্রতিক ও বিশ্লেষণমূল বিষয় – ১৫

H ইউনিট (আইআইটি)

I ইউনিট (বঙ্গবন্ধু তুলনামূলক সাহিত্য ও সংস্কৃতি ইনস্টিটিউট)
  • বাংলা – ৫
  • ইংরেজি – ১৫
  • গণিত – ৪০
  • পদার্থবিজ্ঞান – ১০
  • বাংলা – ১৫
  • ইংরেজি -১৫
  • সাহিত্য – ১০
  • সাধারণ জ্ঞান – ১০
  • সংস্কৃতি – ৫
  • নৃবিজ্ঞান – ৫
  • প্রত্নতত্ত্ব – ৫
  • বঙ্গবন্ধু-মুক্তিযুদ্ধ ও বাংলাদেশ – ১০
  • ইতিহাস-ঐতিহ্য – ৫

পাশ নম্বর

সকল ইউনিটের জন্য MCQ পরীক্ষার পাশ নম্বর ন্যূনতম ৩৩% অথবা ২৬.৪০ নম্বরের এর কথা বলা হলেও কিছু ইউনিটের জন্য আলাদা কিছু শর্ত যোগ করা হয়েছে । যেমন-

  •  A ইউনিট – গণিত বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় গণিত অংশে ন্যূনতম ৫০%, রসায়ন বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি
    পরীক্ষায় রসায়ন অংশে ন্যূনতম ৫০% এবং কম্পিউটার সায়েন্স এন্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় গণিত ও পদার্থবিজ্ঞান অংশে পৃথকভাবে ন্যূনতম ৬০% নম্বর পেতে হবে।
  • C ইউনিট- বাংলা বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় বাংলা অংশে ন্যূনতম ৫০% এবং ইরেজি অংশে ন্যূনতম ৪০%, ইংরেজি বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় ইংরেজি অংশে ন্যূনতম ৫০%, আন্তর্জাতিক সম্পর্ক বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় আর্ন্তজাতিক বিষয়াবলী অংশে ১০ নম্বরের মধ্যে ন্যূনতম ৭ নম্বর এবং জার্নালিজম এন্ড মিডিয়া স্টাডিজ বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় বাংলা ও ইংরেজি অংশে পৃথকভাবে নূ্যনতম ৫০% নম্বর পেতে হবে।
  • D ইউনিট-  বায়ােটেকনােলজি এন্ড জেনেটিক ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় বিষয়ভিত্তিক অংশে
    পৃথকভাবে ন্যুনতম ৫০% নম্বর পেতে হবে।
  • F ইউনিট আইন ও বিচার বিভাগে ভর্তির জন্য ভর্তি পরীক্ষায় বাংলা ও ইংরেজি অংশে পৃথকভাবে নূন্যতম  ১০ নম্বর
    পেতে হবে।

প্রার্থী নির্বাচন পদ্ধতি

  •   গ্রেডিং পদ্ধতিতে শিক্ষার্থীর মাধ্যমিক/সমমানের পরীক্ষায় (চতুর্থ বিষয়সহ) প্রাপ্ত জিপিএ-কে ১.৫ দ্বারা এবং উচ্চমাধ্যমিক/সমমানের পরীক্ষায় (চতুর্থ বিষয়সহ) প্রাপ্ত জিপিএ-কে ২.৫ দ্বারা গুন করে জিপিএ ফলাফল তৈরি করা হবে।
  • লিখিত পরীক্ষায় প্রাপ্ত নম্বরের সঙ্গে জিপিএ নম্বর যোগ করে মােট সর্বোচ্চ নম্বরের ভিত্তিতে সংশ্লিষ্ট
    ইউনিট/বিভাগের আসন সংখ্যা সর্বাধিক ১০ (দশ) গুন শিক্ষার্থীর মেধাতালিকা প্রকাশ করা হবে । C1 ইউনিটের চুড়ান্ত মেধাতালিকা ব্যবহারিক পরীক্ষার পরে প্রকাশ করা হবে।

জাবি ভর্তি সার্কুলার ২০২১

সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি বিজ্ঞপ্তি দেখুন

আবেদন পদ্ধতি

ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থী অনলাইনে জাবি ভর্তি ফরম পূরণ করতে পারবেন । ভর্তি আবেদনের ওয়েবসাইটের ঠিকানা হল – www.juniv-admission.org । ভর্তি আবেদন ফরম পূরণের সকল নিয়মাবরী দেখুন ভর্তি নির্দেশিকাতে ।

জাবি প্রবেশপত্র ডাউনলোড

প্রবেশপত্রের জন্য সদ্য তােলা এককপি পাসপাের্ট সাইজের রঙিন ছবি (৩০০ x ৩০০ পিক্সেল এবং ফাইল সাইজ ১০০ কিলােবাইটের বেশি নয়) ও আবেদনকারীর স্বাক্ষর (৩০০ x ৮০ পিক্সেল এবং ফাইল সাইজ ৬০ কিলােবাইটের বেশি নয়) স্ক্যান করে ২টি আলাদা jpg ফাইল তৈরী করে রাখতে হবে। প্রতিটি ইউনিটের জন্য আলাদাভাবে প্রবেশপত্র ডাউনলােড করতে হবে।

i) juniv-admission.org ওয়েবসাইটে প্রবেশপত্র ডাউনলোড মেনুতে ক্লিক করে সাব-মেনু থেকে সঠিক | অপশনটি বাছাই করতে হবে।

i) প্রদর্শিত স্ক্রীনে আবেদনকারীর Bill Number এবং DBBL Transaction ID (Txnid) ইনপুট করে Log In
করতে হবে।

iii) এবার আবেদনকারীর স্ক্যান করা ছবি এবং স্বাক্ষর আপলােড করতে হবে। অতঃপর বাটনে ক্লিক করে প্রাপ্ত Admit Card টি সংরক্ষণ করতে হবে।

একাধিক ইউনিটে আবেদন করে থাকলে উপরােক্ত নিয়মে অন্যান্য ইউনিটের জন্য Admit Card সংগ্রহ করতে হবে


সকল বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি বিজ্ঞপ্তির আপডেট, বই ও অন্যান্য লেকচার শীট পেতে আমাদের ফেইজবুক পেজ বা গ্রুপে যোগ দিন ।

স্বীকারোক্তিঃ এখানে উপস্থাপিত সকল তথ্যই দক্ষ ও অভিজ্ঞ লোক দ্বারা ইন্টারনেট থেকে সংগ্রহ করা। যেহেতু কোন মানুষই ভুলের ঊর্দ্ধে নয় সেহেতু আমাদেরও কিছু অনিচ্ছাকৃত ভুল থাকতে পারে।সে সকল ভুলের জন্য আমরা আন্তরিকভাবে ক্ষমাপ্রার্থী এবং একথাও উল্লেখ থাকে যে এখান থেকে প্রাপ্ত কোন ভুল তথ্যের জন আমরা কোনভাবেই দায়ী নই এবং আপনার নিকট দৃশ্যমান ভুলটি আমাদেরকে নিম্নোক্ত মেইল / পেজ -এর মাধ্যমে অবহিত করার অনুরোধ জানাচ্ছি।

ই-মেইলঃ admin@admissionwar.com অথবা এইখানে ক্লিক করুন।

admissionwar-fb-pageaw-fb-group
Back to top button